মঙ্গলবার , ১৮ মে ২০২১ | ১লা ভাদ্র, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. অলৌকিক
  3. আইন আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আবহাওয়া
  6. আলোচিত
  7. কবিতা
  8. করোনাভাইরাস আপডেট
  9. ক্যাম্পাস
  10. খেলাধুলা
  11. গনমাধ্যম
  12. চাকুরী
  13. জাতীয়
  14. ধর্ম
  15. নারী ও শিশু

জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ

প্রতিবেদক
এইচ এম ওবায়দুল হক
মে ১৮, ২০২১ ৮:২৯ অপরাহ্ণ

শামীম হোসাইনঃ পিরোজপুর ইন্দুরকানীতে উপজেলায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে হান্নান হাওলাদার এর উপর অতর্কিত হামলা করে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে স্থানীয় কয়েকজন লোকের বিরুদ্ধে। উপজেলার পত্তাশী ইউনিয়নের রামচন্দ্রপুর গ্রামের হাওলাদার বাড়ির আনসারের বাড়ির দক্ষিণ পাসের জমিতে আজ মঙ্গলবার (১৮ মে) সকাল ৭.৪০ মিনিটের দিকে এ হামলার শিকার হন ওই এলাকার মৃত্যু ফজলুল হক হাওলাদার এর ছেলে আঃ হান্নান হাওলাদার (৬৫)।

 

 

এসময় হামলা করেন ওই এলাকার বেল্লাল হাওলাদার (৩৮), হেলাল হাওলাদার (৩৫), জসিম হাওলাদার (৩৪), হাসিব হাওলাদার (১৬), বারেক হাওলাদার (৬০) ও কবির হাওলাদার (৩৭)। হামলার শিকার হান্নান বলেন- এটা আমার দাদার জমি সে মারাযাওয়ার পরে আমার বাবার ওয়ারিশ ছিল বাবা মারা যাওয়ার পরে এখন আমি ওয়ারিশ। এই সম্পত্তিটা অভিযুক্তরা যোর পূর্বক খাইতে চায়। এই জমিতে আমি ধান চাষ করি কিন্তু তারা ধান কেটে নিয়ে যায়। পরে আমি একটা মামলাও করেছি মামলা নং ৪৪ মামলাটি এখনও তদন্তঅবস্থায় রয়েছে। এ ঘটনার কিছুদিন আগে আমিসহ আমার পরিবারের উপর হামলা করে।

 

পরে এলাকার সালিসিদাররা আমাদের’কে জমি মেপে বুজিয়ে দেন। এখন আবার তারাআমাদের জমিতে চাষ করতে যায়। পরে আমি খবর পেয়ে সেখানে গিয়ে তাদেরকে বাঁধা দি।এই সময় দেশীয় দা, সেলাই রেঞ্জ ও হ্যান্ডেল দিয়ে আমার উপর অতর্কিত হামলাচালায়।হামলার শিকার হান্নান এর স্ত্রী রহিমা বেগম বলেন- এর আগেও এই জমির সমস্যানিয়ে আমিসহ আমার বিবাহিত মেয়ে ও স্বামীর উপর ওরা হামলা করে এবং বিভিন্নসময় আমাদের কলাবাগান, কৃষিক্ষেত, ছাগল ও হাস- মুরগির উপর ও হামলা করে। আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে এর সঠিক বিচার চাই। হামলাকারী হেলাল জনান-একজনের কওলা রাখা জমি তারা সে জমিতে চাষ করতে গছে।পরে সে এসে বাঁধা দেওয়ায় তার সাথে ধস্তাধস্তির সময় ট্রাক্টরের হ্যান্ডেলের আঘাত লাগে।এ বিষয়ে ইন্দুরকানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ হুমায়ুন কবির জানান- এখনও কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে আইনি ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

সর্বশেষ - ঢাকা বিভাগ

Design and Developed by BY AKATONMOY HOST BD